প্রতিবেদন

রোহিঙ্গা সংকটে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর উচিত বাংলাদেশের পাশে দাঁড়ানো : আইওএম মহাপরিচালক

স্বদেশ খবর ডেস্ক : রোহিঙ্গা সংকটে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর বাংলাদেশের পাশে দাঁড়ানো উচিত বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ সফরে আসা আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থার (আইওএম) মহাপরিচালক উইলিয়াম ল্যাসি সুইং। তিনি রোহিঙ্গা সংকটকে বিশ্বের সবচেয়ে বড় মানবিক বিপর্যয় হিসেবেও অভিহিত করেন। তিনি বলেন, এটি একটি ভয়াবহ মানবিক বিপর্যয়। তাই বিশ্ব সম্প্রদায়ের উচিত বাংলাদেশ ও রোহিঙ্গাদের পাশে দাঁড়ানো। জাতিসংঘকেও এ সংকটে তার দায়িত্ব পালন করতে হবে।
গত ১৭ অক্টোবর কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালং, বালুখালী ও নাইক্ষ্যংছড়ির ঘুনধুম সীমান্তের বিভিন্ন নিবন্ধিত ও অনিবন্ধিত রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শনের সময় ল্যাসি সুইং এসব কথা বলেন। পরিদর্শনের সময় তিনি এসব ক্যাম্পে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের সঙ্গে কথা বলেন এবং তাদের ভয়াবহ অভিজ্ঞতার কথা শোনেন।
আইওএম প্রধান বলেন, রোহিঙ্গাদের মানবাধিকার নিশ্চিত করতে হবে। এজন্য জাতিসংঘের প্রতিবেদনে মিয়ানমারের রাখাইন প্রদেশে আর্থসামাজিক উন্নয়ন ও রোহিঙ্গাদের মানবিক দৃষ্টিতে দেখতে বলা হয়েছে। আইওএম এ সংকটকালে রোহিঙ্গাদের জন্য সব ধরনের সহায়তা অব্যাহত রাখবে। আইওএম মহাপরিচালক উইলিয়াম ল্যাসি সুইং আরো বলেন, বাংলাদেশ রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়েছে। বাংলাদেশের মানুষ রোহিঙ্গাদের বিভিন্নভাবে সহায়তা করছে। রোহিঙ্গাদের সুরক্ষায় ও তাদের বেঁচে থাকার জন্য খাদ্য, বস্ত্র, আশ্রয়ের মতো সহায়তা এখন জরুরি ভিত্তিতে প্রয়োজন। জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর উচিত এ পরিস্থিতিতে বাংলাদেশের পাশে দাঁড়ানো। এ সময় তিনি রোহিঙ্গাদের যথাযথ প্রক্রিয়ায় নিবন্ধন চালিয়ে যেতে বাংলাদেশ সরকারের প্রতি আহ্বান জানান।