৭ই মার্চকে কেন জাতীয় দিবস হিসেবে ঘোষণা হবে নাÑ জানতে হাইকোর্টের রুল

| November 27, 2017

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ১৯৭১ সালের ৭ই মার্চ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের দেয়া ভাষণ ইউনেস্কো কর্তৃক বিশ্ব প্রামাণ্য ঐতিহ্য হিসেবে স্বীকৃতি দেয়ায় দিনটিকে জাতীয় ঐতিহাসিক দিবস হিসেবে কেন ঘোষণা করা হবে নাÑ তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছে হাইকোর্ট। একইসঙ্গে বঙ্গবন্ধু যে মঞ্চে দাঁড়িয়ে ভাষণ দিয়েছিলেন, মুক্তিযোদ্ধারা বঙ্গবন্ধুর কাছে অস্ত্র সমর্পণ করেছিলেন এবং স্বাধীনতার পরপরই ভারতের প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীকে সংবর্ধনা দেয়া হয়েছিল, সেই মঞ্চ কেন পুনর্নির্মাণের নির্দেশ দেয়া হবে না, কেন বঙ্গবন্ধুর আঙুল উঁচানো ভাস্কর্য স্থাপনের নির্দেশ দেয়া হবে নাÑ তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছে আদালত। পাশাপাশি রুলের অগ্রগতি বিষয়ে ১২ ডিসেম্বরের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিল করতে মন্ত্রিপরিষদ সচিবকে নির্দেশ দিয়েছে আদালত।
বিচারপতি কাজী রেজা-উল হক ও বিচারপতি মোহাম্মদ উল্লাহর হাইকোর্ট বেঞ্চ ২০ নভেম্বর এ আদেশ দেন। আদেশে মন্ত্রিপরিষদ, স্বরাষ্ট্র, গণপূর্ত, শিা, সংস্কৃতি ও অর্থসচিবকে চার সপ্তাহের মধ্যে রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।
সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সাবেক সম্পাদক ড. বশির আহমেদের করা এক রিট আবেদনের ওপর ভিত্তি করে আদালত এই আদেশ প্রদান করে। আদালতে বাদি বশির আহমেদ নিজেই শুনানি করেন। তাকে সহযোগিতা করেন অ্যাডভোকেট মো. শাহ আলম। এ সময় রাষ্ট্রপরে আইনজীবী ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল তাপস কুমার বিশ্বাস।

Category: প্রতিবেদন

About admin: View author profile.

Comments are closed.