ফিচার

জার্মান বিশ্ববিদ্যালয়ে গবেষণা : মুসলমানরাই পৃথিবীতে সবচেয়ে সুখী

স্বদেশ খবর ডেস্ক
পৃথিবীতে কে বেশি সুখী? এই প্রশ্নের এক কথায় উত্তর দেয়া বেশ কঠিন। কেউ হয়ত ধনবান লোককে সুখী মনে করেন। কারো মনে হতে পারে, অল্পে তুষ্ট হাসিখুশি মানুষই বেশি সুখী। কেউ বা মনে করেন, অর্থবিত্ত নয়; বরং মানসিক সুখই বড় সুখ।
সব মিলিয়ে সুখটা আপেক্ষিক। একেকজনের সুখের দৃষ্টিভঙ্গি ও মাপকাঠি একেক ধরনের। কিন্তু একসঙ্গে অসংখ্য মানুষের সুখের ব্যাপারে বলতে গেলে স্পষ্ট করে বলা কঠিন তারা কতটা সুখী। এ নিয়ে দেশে দেশে অনেক জরিপ ও গবেষণা চলছে প্রতিনিয়ত। সুখ নিয়ে অনেক মতপার্থক্য থাকলেও সর্বশেষ জরিপে দেখা যায়, পৃথিবীর বিভিন্ন ধর্মের অনুসারীদের ক্ষেত্রে বিষয়টি স্পষ্ট করেই বলে দিয়েছেন গবেষকরা।
জার্মানির একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক জানাচ্ছেন, ধর্মবিশ্বাসীদের মধ্যে পৃথিবীতে মুসলমানরা সবচেয়ে বেশি সুখী। দ্বিতীয় স্থানে আছে খ্রিস্টানরা। এরপর বৌদ্ধরা এবং তারপর হিন্দুরা।
জার্মানির ম্যান হেইম বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক দীর্ঘ সমীক্ষা চালিয়ে এ তথ্য জানিয়েছেন বলে ব্রিটেনের ডেইলি মেইল পত্রিকার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। প্রতিবেদন অনুযায়ী, ৬৭ হাজার ৫৬২ জনের ওপর চালানো সমীক্ষার পর গবেষণার ফলাফল বলছে, মুসলমানরাই এ পৃথিবীতে সবচেয়ে বেশি সুখী। অপরদিকে যারা ধর্মে বিশ্বাস করে না অর্থাৎ নাস্তিক, তারাই পৃথিবীতে সবচেয়ে বেশি অসুখী।
গবেষণায় উঠে এসেছে, মুসলমানরা নিজেদের জীবন নিয়ে সবচেয়ে বেশি সন্তুষ্ট। এর কারণ হিসেবে উঠে এসেছে মুসলিমদের একত্ববাদে বিশ্বাস। মুসলমানরা একজন সৃষ্টিকর্তা বা আল্লাহর ওপর পরিপূর্ণ আস্থা ও বিশ্বাস রেখে জীবন অতিবাহিত করে। তারা তকদির বা ভাগ্যে বিশ্বাস করে। ফলে অল্পতেও তারা সন্তুষ্টি বোধ করে।
সমীক্ষায় উঠে এসেছে, নাস্তিকরাই পৃথিবীতে সবচেয়ে বেশি অসুখী।
‘ডেইলি মেইল’-এর প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, জার্মানির ম্যান হেইম বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণাটি যুক্তরাষ্ট্রের সাইকোলজিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনের জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়, আল্লাহর একত্ববাদ আর আল্লাহর ওপর দৃঢ় বিশ্বাস মুসলমানদেরকে প্রভাবিত করায় হতাশা ও উদ্বেগ তাদেরকে খুব একটা গ্রাস করতে পারে না। মানুষের প্রতি মুসলমানদের সহানুভূতি অনেক বেশি। এ কারণেই তাদের মধ্যে আত্মহত্যার প্রবণতা অনেক কম।
ম্যানহেইম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাইকোলজিস্ট ড. লরা ম্যারি এডিনগার-স্কন্স এ গবেষণার ফলাফল তৈরি করেন। তিনি বলেন, গবেষণাটির ফলাফলে একটি বিষয় স্পষ্ট হয়েছে যে, মানুষের সন্তুষ্টির সঙ্গে একত্ববাদের সরাসরি সম্পর্ক আছে। ধর্ম সংক্রান্ত মনস্তাত্ত্বিক জ্ঞানের ক্ষেত্রকে আরো প্রসারিত করেছে একত্ববাদ। মুসলমানদের সন্তুষ্টিতে ধর্মের প্রভাবের বিষয়টি আরো বেশি প্রভাব বিস্তার করে। মুসলমানদের মনে আল্লাহর ভয় বদ্ধমূল থাকে। এ জন্য তারা বহুবিধ পাপাচার থেকে বিরত থাকে। তাই তারা বিশ্বে সবচেয়ে বেশি সুখী।
গবেষণার বিশ্লেষণে দেখা যায়, উচ্চ ধার্মিকতা, বিষন্নতা, মাদক গ্রহণ এবং আত্মহত্যার ঝুঁকি কমিয়ে দেয়।
গবেষণায় প্রমাণিত হয়েছে যে, ধর্ম ও সুখের মধ্যে একটি ইতিবাচক সংযোগ আছে।