খেলা

করোনায় অনিশ্চিত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ও আইপিএল

স্বদেশ খবর ডেস্ক
করোনা ভাইরাসের কারণে নির্দিষ্ট সময়ে শুরু হতে পারেনি বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক টি-২০ ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (আইপিএল)। আগামী অক্টোবরে অস্ট্রেলিয়ায় টি-২০ বিশ্বকাপ নিয়ে শঙ্কা উঁকিঝুঁকি মারছে। তবে এই দু’টি টুর্নামেন্ট নিয়েই আশাবাদি অস্ট্রেলিয়ার ডান-হাতি পেসার প্যাট কামিন্স।
গেল ২৯ মার্চ থেকে শুরুর সূচি ছিল আইপিএলের। কিন্তু করোনা ভাইরাসের কারণে ভারতে ২১ দিনের লকডাউন ঘোষণা করা হয়। ফলে আইপিএলের ১৩তম আসর নির্ধারিত সময়ে শুরু হতে পারেনি। আইপিএলের ১৩তম আসরে সবচেয়ে দামি বিদেশি খেলোয়াড় এই কামিন্স। নিলামে ১৫ কোটি ৫০ লাখ রুপিতে তাকে কিনে নেয় কলকাতা নাইট রাইডার্স।
কামিন্স আশাবাদি, খুব শিগগিরই আইপিএল হবে। তিনি বলেন, টুর্নামেন্টের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট প্রত্যেক ক্রিকেটারই আশাবাদী যে আইপিএল হবেই। কিন্তু সবার আগে দেখতে হবে, সংক্রমণ যেন ছড়াতে না পারে। সবার সুরক্ষা সবকিছুর আগে। পরিস্থিতি অনুকূলে এলেই আইপিএল আয়োজন করা উচিত।
কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে খেলার ব্যাপারে কামিন্স বলেন, নাইট পরিবারের অনেকেই ইতিবাচক। ওরা আত্মবিশ্বাসী, এই সংকট শেষ হলেই এই প্রতিযোগিতাটি শুরু হবে। আমি নাইটদের হয়ে খেলতে মুখিয়ে আছি।
আইপিএলের মত টি-২০ বিশ্বকাপ নিয়েও আশাবাদি কামিন্স। তিনি বলেন, টি-২০ বিশ্বকাপের এখনো অনেক দেরি। আশা করি, এর আগেই পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে। যথাসময়েই বিশ্বকাপ হবে। সকলের প্রত্যাশা এমনই। দেশের মাটিতে বিশ্বকাপ খেলাটা হবে স্বপ্নের মতো।

বিশ্বকাপ না হলে আইপিএল
অক্টোবর-নভেম্বরে
করোনা ভাইরাসের কারণে নির্ধারিত সময়ে শুরু হতে পারেনি আইপিএল। গেল ২৯ মার্চ থেকে শুরুর সূচি ছিলো আইপিএলের। আর আগামী অক্টোবরে অস্ট্রেলিয়ায় শুরু হবে টি-২০ বিশ্বকাপ। করোনা ভাইরাসের কারণে বিশ্বকাপ নিয়ে শঙ্কা রয়েছে। ইতোমধ্যে আইসিসি জানিয়েছে, বিশ্বকাপ সঠিক সময়েই হবে। কিন্তু বিশ্বকাপ যদি ওই সময় না হয়, তবে আইপিএল আয়োজনের চিন্তা করছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই)।
বিসিসিআইয়ের এক শীর্ষ কর্মকর্তা আইএএনএস কে জানিয়েছেন, যদি বিশ্বকাপ পিছিয়ে যায় তাহলে অক্টোবর-নভেম্বরে আইপিএল আয়োজনের চিন্তা-ভাবনা করা হচ্ছে।
বিসিসিআইয়ের ওই কর্মকর্তা আরও বলেন, এই মূর্হুতে পরিস্থিতি কঠিন। সবকিছুই লকডাউন। অস্ট্রেলিয়া সাফ জানিয়েছে, ছয় মাস কাউকে তাদের দেশে ঢুকতে দিবে না। হয়তো পরিস্থিতি এর মধ্যে স্বাভাবিক হতেও পারে। যদি আইসিসি টি-২০ বিশ্বকাপ পিছিয়ে দেয় এবং অবস্থার উন্নতি হয় তাহলে অক্টোবর-নভেম্বর আইপিএল আয়োজনের সেরা সময়।
১৮ অক্টোবর থেকে ১৫ নভেম্বর পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ায় টি-২০ বিশ্বকাপ আয়োজন করার সূচি রয়েছে।
প্রথম রাউন্ড পেরিয়ে মূল প্রতিযোগিতায় খেলতে হবে বাংলাদেশকে। প্রথম রাউন্ডে বি গ্রুপে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ নামিবিয়া, নেদারল্যান্ডস ও স্কটল্যান্ড। গ্রুপের সেরা হলেই পরের রাউন্ডে খেলতে পারবে বাংলাদেশ।

নারীদের অনূর্ধ্ব-২০
বিশ্বকাপও স্থগিত
করোনা ভাইরাসের কারণে আগেভাগেই স্থগিত হয়ে গেল অনূর্ধ্ব-২০ নারীদের অনূর্ধ্ব-২০ বিশ্বকাপ ফুটবল। যা আগামী আগস্ট-সেপ্টেম্বরে পানামা ও কোস্টারিকায় হওয়ার কথা ছিল।
নারীদের অনূর্ধ্ব-২০ বিশ্বকাপ ফুটবল স্থগিতের ব্যাপারে ফিফা ওয়ার্কিং গ্রুপ জানায়, বিশ্বজুড়ের চলতে থাকা উদ্বেগজনক পরিস্থিতির কারণে এই প্রতিযোগিতাটিও স্থগিত করা হলো। এর আগে স্থগিত করা হয়েছিল নারীদের অনূর্ধ্ব-১৭ বিশ্বকাপ ফুটবলও। যা আগামী নভেম্বরে ভারতের হওয়ার কথা ছিল।
ভারতে প্রথমবার নারীদের অনূর্ধ্ব-১৭ বিশ্বকাপ হওয়ার কথা ছিল চলতি বছরের ২ থেকে ২১ নভেম্বর।
পানামা ও কোস্টারিকার প্রতিনিধিদের সাথে ভিডিও কনফারেন্সের পরে ফিফা ওয়ার্কিং গ্রুপ আরও জানায়, দ্রুত জানানো হবে অনূর্ধ্ব-১৭ ও ২০ বিশ্বকাপ কবে হবে। নতুন ক্রীড়াসূচি চূড়ান্ত করতে একটি কমিটিও তৈরি করেছে ফিফা।